বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ০২:২৭ পূর্বাহ্ন

উপ-সম্পাদক :: দিদার সরদার
প্রধান সম্পাদক :: সমীর কুমার চাকলাদার
প্রকাশক ও সম্পাদক :: কাজী মোঃ জাহাঙ্গীর
যুগ্ম সম্পাদক :: মাসুদ রানা
সহ-সম্পাদক :: এস.এম জুলফিকার
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক :: মামুন তালুকদার
নির্বাহী সম্পাদক :: সাইফুল ইসলাম
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক :: আবুল কালাম আজাদ
সংবাদ শিরোনাম :
চরফ্যাশনে প্রধান শিক্ষককের বিরুদ্ধে উপবৃত্তি আত্মসাতের অভিযোগ ৬ দফা দাবী আদায়ে বরিশালে পলিটেকনিক শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ জাতীয় পতাকা দিয়ে দোকানে ছাউনি দিলেন আ’লীগ নেতা! গৌরনদীর জরাজীর্ণ স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কেন্দ্রের বিভিন্ন পদ শূন্য অন্যদিকে জরাজীর্ণ ঝুঁকিতে দেড় বছরের মেয়ের গলায় ছুরি ধরে গৃহবধূকে ধর্ষণ বরিশালে কাউন্সিলর নুর ইসলামের অত্যাচার থেতে রক্ষা পেতে আইনজীবি’র সংবাদ সম্মেলন যুদ্ধ নয় প্রতিবেশী দেশের সাথে শান্তিপূর্ণ অবস্থান করতে চাই: বরিশালে শেখ হাসিনা ভোলায় ১ ঘণ্টার পুলিশ সুপার স্কুলছাত্রী রিমি ঝালকাঠিতে প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিতে ভোররাতে মা ইলিশ নিধনে নামে অসাধু জেলেরা পিরোজপুরে এ বছর বন্যা ও করোনায় কমেছে সুপারির ফলন, ঋণ চায় চাষিরা
শুভ জন্মদিন শাহেনশাহ

শুভ জন্মদিন শাহেনশাহ

তিনি ‘বিগ বি’, বলিউডের ‘শাহেনশাহ’। সত্তরের দশকের ‘অ্যাংরি ইয়াং ম্যান’। বয়স তার কাছে একটি সংখ্যা মাত্র। তাই বয়সকে ফুঁ দিয়ে তিনি আজ পা দিলেন ৭৮ বছর বয়সে? শুভ জন্মদিন। তার ভরাট কণ্ঠ এবং অভিনয়-জাদুতে মুগ্ধ গোটা বিশ্ব। তিনি অমিতাভ বচ্চন। ভারতীয় সিনেমায় অবদানের জন্য ২০১৫ সালে তাকে পদ্মবিভূষণ সম্মানও প্রদান করা হয়। শুধু তা-ই নয়, ফ্রান্সের তরফ থেকে ২০০৭ সালে ‘নাইট অব দ্য লন্ডন’ সম্মানও দেওয়া হয়?

৭৮ বছর বয়সেও বলিউডের এ প্রজন্মের হিরোদের সঙ্গে বক্স অফিসে টক্কর দেন অমিতাভ। প্রথম দিকে টানা ২০ বছর একের পর এক হিট ছবি দিয়েছেন। প্রযোজকরা লাভ কুড়িয়েছেন। কিন্তু এখন আর এসব টাকার অঙ্ক নিয়ে মাথা ঘামান না অমিতাভ বচ্চন। ছবি কত টাকা রোজগার করল, তা নিয়েও নয়। কারণটা বললেন নিজেই। অমিতাভ বলেন, ‘আমার ছবি ১০০ কোটির ক্লাবে ঠাঁই পাবে না। এটুকু বাস্তবজ্ঞান আমার আছে। ক্যারিয়ারের এ পর্যায়ে এসে এসব ভাবাও উচিত নয়। যখন ছবির হিরো হতাম, তখন এসব নিয়ে ভাবতাম। কারণ তখন আমার কাঁধে অনেক বেশি দায়িত্ব ছিল।’

এখন শুধু ছবির চিত্রনাট্য, গল্প, ছবিতে তার চরিত্র নিয়ে ভাবেন বিগ বি। তবে এ নিয়ে কোনো আক্ষেপ নেই তার। তিনি বললেন, ‘৭৪ বছর বয়সেও এত পরিচালক আমার সঙ্গে কাজ করতে চান। রোজ ঘুম থেকে উঠে কাজে যাই। এর চেয়ে বেশি আর কী পেতে পারি! এ জন্য নিজেকে ভাগ্যবান মনে হয়।’

বিগ বির জন্মদিন বলে কথা। শুভেচ্ছাবার্তায় ভরে উঠেছে অভিনেতার টুইটার প্রোফাইল। ইতোমধ্যেই টুইটারে তার ভক্তদের ধন্যবাদও জানিয়েছেন মিস্টার বচ্চন। কিন্তু এ বছর জন্মদিন সেলিব্রেটই করতে চাইছেন না তিনি। সংবাদমাধ্যমকে বিগ বি বলেছিলেন, ‘জন্মদিন নিয়ে বোকার মতো হইচই করার কোনো মানে হয় না। আমার কাছে এ দিনটা আর পাঁচটা দিনের মতোই সাধারণ।’

বাবা-মা-স্ত্রী-সংসার

বাবা হরিবংশ রাই বচ্চন আর মা তেজি বচ্চনের খুব কাছের ছিলেন কনিষ্ঠ পুত্র অমিতাভ। হরিবংশ রাই বচ্চন ছেলের নাম রাখতে চেয়েছিলেন ইনকিলাব। কিন্তু তেজি বচ্চনের আপত্তির কারণে তার নাম রাখতে হয় অমিতাভ।

স্ত্রী জয়ার সঙ্গে পুনে ফিল্ম অ্যান্ড টেলিভিশন ইনস্টিটিউটেই প্রথম দেখা হয় অমিতাভের। পরে হৃষিকেশ মুখোপাধ্যায়ের ‘গুড্ডি’ ছবিটির সেটে জয়ার সঙ্গে আবার দেখা হয় অমিতাভের।

হাজার কাজ থাকুক। তবু পরিবারের জন্য আলাদা করে সময় বার করবেনই বিগ বি। তা সে শুরুর দিনগুলোর কথাই হোকবা আজ। জনপ্রিয়তার এতটা শিখরে ওঠার পরও আজ তিনি প্রকৃত অর্থেই ফ্যামিলি ম্যান।

অমিতাভ কেন রাজনীতি থেকে ইস্তফা দিয়েছিলেন?

রাজীব গান্ধী চেয়েছিলেন বলে ’৮৪-র লোকসভা ভোটে ইলাহাবাদে কংগ্রেসের টিকিট পেলেন অমিতাভ। জিতলেন। সাংসদ হলেন। তার পর ’৮৫ থেকে ’৮৭, এই দুবছরের মধ্যে অমিতাভের ওপর ‘বিরক্ত’ হয়ে পড়েছিলেন রাজীব, এমনটাই দাবি ফোতেদারের, তিন বছর আগে প্রকাশিত তার আত্মজীবনীতে।

ফোতেদারের কথায়, ‘আমার কাছে রিপোর্ট আসছিল, এমপি হওয়ার পর থেকেই উত্তরপ্রদেশ সরকারের কাজে বড় বেশি নাক গলাচ্ছিলেন অমিতাভ। রাজ্য সরকারের বিভিন্ন দপ্তরের আমলারা কে কোথায় বদলি হবেন, কোন আমলার চাকরি বা প্রমোশন হবে আর কার হবে না, সেই সব ব্যাপারে অমিতাভ ছড়ি ঘোরাচ্ছিলেন।’ ফোতেদার জানিয়েছেন, এখানেই শেষ নয়। মধ্যপ্রদেশ, রাজস্থান ও মহারাষ্ট্রের মতো অন্য রাজ্যে দলের কোনো শাখা সংগঠনে কে কোথায় বসবেন, সে ব্যাপারেও নির্দেশ দিতে শুরু করেছিলেন অমিতাভ। রাজীবের রাজনৈতিক সচিবের কথায়, ‘ওই সময় রাজস্থানে তার পছন্দের এক জনকে দলের মহিলা শাখার চেয়ারপারসন করার জন্য চিঠি লিখে নির্দেশ দিয়েছিলেন অমিতাভ। সেই চিঠি আমি পড়েছিলাম। কিছুই বলিনি রাজীবজিকে। শুধু বলেছিলাম রাজস্থানের তদানীন্তন মুখ্যমন্ত্রী হরিদেব জোশীকে। উনি রাজি হলেন না। বললেন, কাকে ওই পদে বসাবেন, তা ওর ঠিক করা আছে।’ যে দিন রাজীব-অমিতাভের সম্পর্কে চিড় ধরতে শুরু করল, সেই দিনটারও সাক্ষী ছিলেন ফোতেদারই।

ফোতেদার জানিয়েছেন, এক দিন অমিতাভ দেখা করতে এলেন প্রধানমন্ত্রীর (রাজীব) সঙ্গে। ওদের মধ্যে কথা হলো বেশ কিছু ক্ষণ। বেলা তখন পৌনে তিনটে। ফোতেদার মধ্যাহ্নভোজে যাবেন বলে ভাবছেন। এমন সময় রাজীবজি ডাকলেন তাকে। ফোতেদার গিয়ে দেখলেন, সাত নম্বর রেসকোর্স রোডে (প্রধানমন্ত্রী বাসভবন) তখন অমিতাভকে সঙ্গে নিয়ে হাঁটছেন রাজীব। ফোতেদার পৌঁছতেই তাকে আর অমিতাভকে নিয়ে ঘরে ঢুকলেন রাজীব। রাজীবের এক পাশে বসলেন অমিতাভ। অন্য পাশে ফোতেদার। ফোতেদারের কথায়, ‘আসল চমকটা অপেক্ষা করছিল ওখানেই। অমিতাভকে হঠাৎ রাজীবজি বললেন, ফোতেদার চাইছেন, তুমি পদত্যাগ কর। আমি আকাশ থেকে পড়লাম। রাজীবজি যে এমন কথা বলবেন অমিতাভকে, আমি তার বিন্দুবিসর্গও জানতাম না। আগে আমার সঙ্গে কিছু আলোচনাও করেননি রাজীবজি। তা শুনে অমিতাভ বলেন, যদি ফোতেদার চান আমি ইস্তফা দিই, তা হলে দিয়ে দিচ্ছি। দাও কাগজপত্র দাও। কোথায় কী লিখে দিতে হবে বল।’

ফোতোদার জানিয়েছেন, এর পরেই তিনি ডাকেন রাজীবের ব্যক্তিগত সচিব ভিনসেন্ট জর্জকে। তাকে একটা রাইটিং প্যাড আর সাংসদ অমিতাভের লেটারহেড প্যাড আনতে বলেন। ফোতেদার বলেছেন, ‘আমি অমিতাভকে বললাম, নিজের হাতে লিখুন লোকসভার স্পিকারকে। আপনি ইস্তফা দিতে চান। অমিতাভ জানতে চাইলেন, এইটুকু লিখে দিলেই হবে? তার পর সেই চিঠি পাঠানো হলো স্পিকারকে। আর তা গ্রহণও হয়ে গেল।’

অমিতাভের যত গাড়ি

বেশির ভাগ বলি তারকারই ল্যান্ড রোভার রেঞ্জ রোভার স্পোর্ট ডায়নামিক অটোবায়োগ্রাফি মডেলটি রয়েছে। অমিতাভ বচ্চনও বাদ যাননি। মিস্টার বচ্চনের গ্যারেজেও রয়েছে ২.৮ কোটি রুপি মূল্যের এ গাড়ি। ষ ‘একলব্য’ ছবিতে অমিতাভ বচ্চনের অভিনয় খুব পছন্দ হয়েছিল পরিচালক ও প্রযোজক বিধু বিনোদ চোপড়ার। এতটাই পছন্দ হয়েছিল যে, সোজা তার বাড়ি গিয়ে রোলস রয়েস ফ্যান্টম গিফট করে এসেছিলেন বিধু। যে গাড়ির দাম ৯ কোটি রুপির কাছাকাছি। ষ হরেক কিসিমের গাড়িতে ভরপুর বিগ বির গ্যারেজ। স্পোর্টস কারও রয়েছে সেই তালিকায়। অমিতাভের একটি ‘পোরসে কেম্যান এস’ গাড়িও রয়েছে।
একটি মিনি কুপারও রয়েছে অমিতাভ বচ্চনের। এক বার তার জন্মদিনে পুত্র অভিষেকই সিনিয়র বচ্চনকে উপহার দিয়েছিলেন এই মিনি কুপারটি। ষ আর পাঁচটা তারকার মতো মার্সিডিজ প্রীতি নেই অমিতাভ বচ্চনের। তবে মার্সিডিজ বেঞ্জ এস ক্লাসের একবারে লেটেস্ট মডেলটি ব্যবহার করেন তিনি। ষ একটি বেন্টলি কন্টিনেন্টাল জিটি-ও রয়েছে অমিতাভ বচ্চনের। বলি সূত্রের খবর অনুযায়ী, নামজাদা এক রাজনীতিবিদ এ গাড়িটি গিফট করেছিলেন অমিতাভকে। তবে বেশির ভাগ সময়েই এই গাড়িটি নিয়ে ঘুরতে দেখা যায় অভিষেক এবং ঐশ্বরিয়াকে।
টয়োটা ল্যান্ড ক্রুজারও রয়েছে অমিতাভ বচ্চনের গ্যারেজে। বিগ বির সর্বক্ষণের সঙ্গী এ গাড়িটিই। ষ সিনিয়র বচ্চনের বেন্টলি প্রীতি আজকের নয়। একটি বেন্টলি মডেলেই ক্ষান্ত নন সিনিয়র বচ্চন। আরও একটি বেন্টলি মডেল রয়েছে অভিনেতার। আর সেই মডেলটি হলো বেন্টলি আরনেজ।
অমিতাভ-জয়ার কত সম্পদ রয়েছে

বচ্চন দম্পতির সম্পত্তি প্রায় হাজার কোটি টাকারও বেশি। ২০১২ সালে বচ্চন দম্পতির সম্পত্তির মোট হিসাব পাওয়া গিয়েছিল ৪৯৩ কোটি টাকা। বর্তমানে বচ্চন দম্পতির স্থাবর সম্পত্তি রয়েছে ৪৬০ কোটিরও বেশি। একই সঙ্গে তাদের অস্থাবর সম্পত্তি রয়েছে প্রায় ৫৪০ কোটি টাকার। ২০১২-তে যা ছিল ৩৪৩ কোটির কাছাকাছি। সম্পত্তির খতিয়ানে দেখা গিয়েছে, বচ্চন দম্পতির কাছে সোনাসহ গয়না রয়েছে ৬২ কোটি টাকারও বেশি। এর মধ্যে শুধু অমিতাভেরই রয়েছে ৩৬ কোটি টাকারও বেশি গয়না।

বচ্চন দম্পতির গ্যারাজে রয়েছে ১২টি বিলাসবহুল গাড়ি, যার মোট দাম ১৩ কোটি টাকারও বেশি। এগুলোর মধ্যে রয়েছে একটি রোলস রয়েস, তিনটি মার্সিডিজ, একটি পোরশা এবং একটি রেঞ্জ রোভার। অমিতাভের একটি ন্যানো ও ট্র্যাক্টরও রয়েছে। অমিতাভ ও জয়ার দুটি ঘড়ি রয়েছে যার একটির দাম ৩ কোটি ৪০ লাখ টাকা। অপরটি ৫১ লাখ টাকার। অমিতাভের একটি পেন রয়েছে যার দাম ৯ লাখ টাকারও বেশি। ফ্রান্সে জমি ও বাড়ি মিলিয়ে বচ্চন দম্পতির ৩ হাজার ১৭৫ বর্গমিটারের সম্পত্তি রয়েছে। একই সঙ্গে নয়ডা, ভোপাল, পুনে, আহমেদাবাদ এবং গান্ধীনগরেও সম্পত্তি রয়েছে।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Dokhinerkhobor.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com