বুধবার, ২৫ নভেম্বর ২০২০, ০৩:৪২ অপরাহ্ন

উপ-সম্পাদক :: দিদার সরদার
প্রধান সম্পাদক :: সমীর কুমার চাকলাদার
প্রকাশক ও সম্পাদক :: কাজী মোঃ জাহাঙ্গীর
যুগ্ম সম্পাদক :: মাসুদ রানা
সহ-সম্পাদক :: এস.এম জুলফিকার
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক :: মামুন তালুকদার
নির্বাহী সম্পাদক :: সাইফুল ইসলাম
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক :: আবুল কালাম আজাদ
নিরাপত্তা চেয়ে ভোলায় কোর্ট স্টাফদের আবেদন

নিরাপত্তা চেয়ে ভোলায় কোর্ট স্টাফদের আবেদন

ভোলা প্রতিবেদক ॥ ভোলায় জেলা ও দায়রা জজের কাছে নিরাপত্তা চেয়ে লিখিত আবেদন করেছেন বিচার বিভাগীয় (আদালতের) কর্মচারীরা। রোববার সকালে লিখিত আবেদন করেন তারা। চরফ্যাশনে আইনজীবী ও আদালত স্টাফদের মধ্যে হামলা, সংঘাত ও দ্বন্দ্বকে কেন্দ্র করে ওই আদালতের ২২ স্টাফ নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন। জেলা ও দায়রা জজ এবিএম মাহমুদুল হকের কাছে লিখিত আবেদনে বিচার বিভাগীয় কর্মচারী অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তারা উল্লেখ করেন, গত মঙ্গলবার চরফ্যাশন অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতে নিয়মবহির্ভূতভাবে একটি হত্যা মামলার মূল নথির ফটোকপি চেয়ে না পেয়ে ক্ষিপ্ত হন অ্যাডভোকেট হারুন অর রশিদ ও তার সহকারী ইউসুফ।
পরে এরা লাঠিসোটাসহ বহিরাগত কয়েকজনকে নিয়ে হামলা করে স্টাফদের ওপর। এতে আহত হন সেরেস্তাদার কমল দেব, পেশকার আবুল কালাম আজাদ, অফিস সহায়ক তাপস চন্দ্র দাস। এদের রক্তাক্ত অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এর পরও স্টাফদের হুমকি-ধমকি দেয়া হচ্ছে। এসব ঘটনার প্রতিবাদে ভোলা জেলা সদরে মানববন্ধন, সমাবেশ করেন কর্মচারীরা। এদিকে হামলাকারী আইনজীবীর সনদ বাতিলের জন্য বার কাউন্সিলে আবেদন করা হয়েছে বলে জানান বিচার বিভাগীয় কর্মচারী অ্যাসোসিয়েশনের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মো. নাজিম উদ্দিন। ওই আদালতের স্টাফরা এখন নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন। অন্যদিকে চরফ্যাশন আইনজীবী সমিতির সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো. মোজাম্মেল হক মামলার কপি চাইতে গিয়ে অ্যাডভোকেট হারুন হামলার শিকার হয়েছেন। তারা ওই আদালতের অভিযুক্ত স্টাফদের অপসারণ দাবি করেন।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Dokhinerkhobor.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com