শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০৭:৩১ পূর্বাহ্ন

উপ-সম্পাদক :: দিদার সরদার
প্রধান সম্পাদক :: সমীর কুমার চাকলাদার
প্রকাশক ও সম্পাদক :: কাজী মোঃ জাহাঙ্গীর
যুগ্ম সম্পাদক :: মাসুদ রানা
সহ-সম্পাদক :: এস.এম জুলফিকার
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক :: মামুন তালুকদার
নির্বাহী সম্পাদক :: সাইফুল ইসলাম
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক :: আবুল কালাম আজাদ
সংবাদ শিরোনাম :
ইন্টারনেটের গতি মধ্যরাত থেকে কমতে পারে

ইন্টারনেটের গতি মধ্যরাত থেকে কমতে পারে

দেশের আইটিসি অপারেটররা ভারতের চেন্নাই এবং মুম্বাই থেকে তাদের সাবমেরিন কেবলের ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথ সরবরাহ নিয়ে থাকে। বেনাপোল সীমান্ত হয়ে এই ব্যান্ডউইথ দেশে আসে। যেসব আইটিসি চেন্নাই থেকে ‘আইটুআই’ সাবমেরিন কেবলের ব্যান্ডউইথ নিয়ে থাকে, তাদের জন্য সমস্যা হতে পারে। বাংলাদেশের দুটি সাবমেরিন কেবলে কোনো সমস্যা না থাকলেও ‘আইটুআই’ সাবমেরিন কেবলের ব্যান্ডউইথ সমস্যার কারণে আজ বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে কয়েক দিন দেশের ইন্টারনেটের গতি কম থাকতে পারে।

ভারতী এয়ারটেল লিমিটেডের গ্লোবাল সার্ভিসেস ম্যানেজমেন্ট সেন্টার গতকাল বাংলাদেশে তাদের সহযোগী প্রতিষ্ঠানকে ই-মেইলে জানিয়েছে, গতকাল বুধবার সন্ধ্যা থেকে আইটুআই সাবমেরিন কেবলের পরিবর্তন ও রক্ষণাবেক্ষণকাজ শুরু হওয়ায় ইন্টারনেটসেবা কার্যক্রম আগামী ৩০ অক্টোবর থেকে শুরু হয়ে ২ নভেম্বর পর্যন্ত চলতে পারে।

মেইলে আরও বলা হয়েছে, কাজের অগ্রগতি ও আবহাওয়ার অবস্থার ওপর নির্ভর করে সময়সূচিতে পরিবর্তন আসতে পারে। এর আগে ২৬ অক্টোবর জানানো হয়েছিল, ২৭ অক্টোবর থেকে এই কাজ শুরু করার পরিকল্পনা রয়েছে।

ভারতীয় সাবমেরিন কেবলের পরিবর্তন ও রক্ষণাবেক্ষণ কাজ শুরু হলেও দেশের দুটি সাবমেরিন কেবলে কোনো সমস্যা নেই বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবল কোম্পানি লিমিটেডের (বিএসসিসিএল) ব্যবস্থাপনা পরিচালক মসিউর রহমান । তিনি বলেন, ‘আমাদের দুটি সাবমেরিন কেবলে কোনো সমস্যা নেই। সমস্যা হতে পারে যেসব ইন্টারন্যাশনাল টেরেস্ট্রিয়াল কেবল (আইটিসি) অপারেটর ভারত থেকে ব্যান্ডউইথ আনছে তাদের দিক থেকে। দেশে বর্তমানে ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথের চাহিদা দুই হাজার জিবিপিএস (গিগাবাইট পার সেকেন্ড)। এর মধ্যে আমাদের কাছ থেকে নেওয়া হয় এক হাজার ২৭৫ জিবিপিএস। বাকিটা আসে আইটিসি অপারেটরদের মাধ্যমে ভারত থেকে।’

তিনি আরও বলেন, ‘আইটুআই সাবমেরিন কেবলের চেন্নাই থেকে সিঙ্গাপুর রুটের লিংকের মেরামতকাজ চলবে আগামী ৩০ অক্টোবর থেকে ২ নভেম্বর পর্যন্ত। যদিও বাংলাদেশের দুটি সাবমেরিন কেবলে কোনো সমস্যা নেই, তার পরও দেশের গ্রাহকরা এই চার দিন ইন্টারনেটের গতি নিয়ে কিছুটা সমস্যায় পড়তে পারে। কারণ, আইটিসি অপারেটররা চেন্নাই থেকে ভাগাভাগি করে ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথ নিয়ে থাকে।’

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Dokhinerkhobor.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com