মঙ্গলবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২০, ০৫:৫৩ অপরাহ্ন

উপ-সম্পাদক :: দিদার সরদার
প্রধান সম্পাদক :: সমীর কুমার চাকলাদার
প্রকাশক ও সম্পাদক :: কাজী মোঃ জাহাঙ্গীর
যুগ্ম সম্পাদক :: মাসুদ রানা
সহ-সম্পাদক :: এস.এম জুলফিকার
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক :: মামুন তালুকদার
নির্বাহী সম্পাদক :: সাইফুল ইসলাম
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক :: আবুল কালাম আজাদ
নগরীর ঝুলন্ত তারের জঞ্জাল অপসারণে শীঘ্রই মাঠে নামছে বিসিসি

নগরীর ঝুলন্ত তারের জঞ্জাল অপসারণে শীঘ্রই মাঠে নামছে বিসিসি

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ রাজধানী ঢাকা সিটি কর্পোরেশনের ন্যায় বরিশাল শহরকেও ঝুলন্ত তারের জঞ্জাল মুক্ত করতে প্রস্তুতি নিয়েছে বিসিসি। শহরে যত্রতত্র ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার এবং বিদ্যুতের তারগুলো সৌন্দর্যহানি করাসহ নগরবাসীকে অগ্নিঝুঁকিতে ফেলে দেওয়ার বিষয়টির ওপর বিসিসি কর্তৃপক্ষ গুরুত্ব দিয়েছে। খুব শীঘ্রই নগর কর্তৃপক্ষ বিদ্যুৎ বিভাগের সহযোগিতায় এই তার অপসারণে মাঠে নামতে যাচ্ছে। সিটি কর্পোরেশনের একটি নির্ভরযোগ্য সূত্র এ তথ্য রোববার নিশ্চিত করেছে।
সূত্রটি জানায়, ইতিমধ্যে এই তারের জঞ্জাল অপসারণ করা নিয়ে সিটি কর্পোরেশনের বেশ কয়েক দফা আলোচনা হয়েছে। শহরকে নিরাপদ রাখার প্রশ্নে মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহ কিছুতেই চাইছেন না ঝুলন্ত তারের জঞ্জাল থাকুক। ফলে বিসিসি কর্তৃপক্ষ তাদের প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে, এখন যে কোনো দিন মেয়রের নির্দেশ অনুযায়ী মাঠে নামার অপেক্ষা আছে।
অপর একটি সূত্র জানায়, ঝুলন্ত তারগুলোতে থেকে বড় ধরনের অগ্নিসংযোগের ঝুঁকি থাকায় এবার সিটি কর্পোরেশন বিষয়টি অধিক গুরুত্ব দিয়ে দেখছে। কারণ ইতিপূর্বে এই সমস্ত তার থেকে সদর রোড়, বগুড়া রোডসহ একাধিক এলাকায় আগুন লাগে। বিশেষ করে ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডার কোম্পানির তারগুলো পথে পথে ঝুলে থাকায় শহরের সৌন্দর্য নষ্ট করছে। এই কারণেই সিটি কর্পোরেশন ঝুলন্ত তার অপসারণে কঠোর অবস্থান নিয়ে মাঠে নামতে যাচ্ছে।
বিষয়টি নিশ্চিত করে সিটি কর্পোরেশনের প্রশাসনিক কর্মকর্তা মোয়াজ্জেম হোসেন জানান, মেয়র স্যার শহরকে নিরাপদ ও সৌন্দর্য রক্ষায় কার্যকরী বেশ কয়েকটি পদক্ষেপ নিয়েছেন। ইতিমধ্যে কয়েকটি বাস্তবায়ন হলেও তার অপসারণের এই বিষয়টি নিয়ে শীঘ্রই মাঠে নামার সিদ্ধান্ত আছে। এক্ষেত্রে বিদ্যুৎ বিভাগের সহযোগিতা নিয়ে অভিযান শুরু করার পরিকল্পনা রয়েছে।
এদিকে কর্পোরেশনের একটি দায়িত্বশীল সূত্র জানিয়েছে, তার অপসারণ করলে ইন্টারনেট ব্যবস্থার বিঘœ ঘটাসহ আরও কিছু সমস্যার সম্মুখীন হওয়ার সম্ভবনা থাকলেও তা সচল রাখতে সিটি কর্পোরেশন ব্যতিক্রম চিন্তা-ভাবনা করছে। এক্ষেত্রে নির্ধারিত পাইপ বসিয়ে তার ভেতর দিয়ে সংযোগ নেওয়ার পরিকল্পনা আছে। তবে এর জন্য সিটি কর্পোরেশনকে মাসিক ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডারদের মাসিক বা বাৎসরিক বিলের আওতায় নিয়ে আসা হবে।’

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Dokhinerkhobor.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com