বুধবার, ২১ অক্টোবর ২০২০, ০৯:৫৬ পূর্বাহ্ন

উপ-সম্পাদক :: দিদার সরদার
প্রধান সম্পাদক :: সমীর কুমার চাকলাদার
প্রকাশক ও সম্পাদক :: কাজী মোঃ জাহাঙ্গীর
যুগ্ম সম্পাদক :: মাসুদ রানা
সহ-সম্পাদক :: এস.এম জুলফিকার
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক :: মামুন তালুকদার
নির্বাহী সম্পাদক :: সাইফুল ইসলাম
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক :: আবুল কালাম আজাদ
সংবাদ শিরোনাম :
বঙ্গবন্ধু’র সমাধিতে বাংলাদেশ সম্পাদক ফোরাম ও সম্পাদক পরিষদ বরিশাল’র শ্রদ্ধা নিবেদন স্বরূপকাঠিতে শারদীয় দুর্গোৎসবে মন্ত্রীর আগমনে জলাবাড়ীর চেয়ারম্যান প্রার্থী বিশ্বজিৎ হালদারের নেতৃত্বের মহডায় মুগ্ধ ইউনিয়নবাসীরা কৃষকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটিতে স্থান পেলেন মঈন আব্দুল্লাহ ঝালকাঠিতে বাইসাইকেল সেলাই মেশিন রিং স্লাব দিয়ে কর্মসংস্থান করে দিলেন মোবারক হোসেন মল্লিক ভান্ডারিয়ায় ধাওয়া ইউপিতে সদস্য পদে উপ নির্বাচন অনুষ্ঠিত পিরোজপুরে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের জীবিকা নির্বাহ উপকরণ দিল নৌবাহিনী বানারীপাড়ায় শিশু ধর্ষণ চেষ্টা, অভিযুক্তকে পুলিশে দিল জনতা গৌরনদীতে নারী নির্যাতন প্রতিরোধে কর্মশালা বরিশালে শুরু হয়েছে পণ্যবাহি নৌযান শ্রমিকদের কর্মবিরতি॥ যাত্রীবাহি লঞ্চ চলাচল অব্যাহত বরিশালে বাম গণতান্ত্রিক জোটের বিক্ষোভ
মেহেন্দিগঞ্জে করোনা পরিস্থিতিতে ভূমি অফিস’র অস্থায়ী কর্মীকে ছাঁটাই

মেহেন্দিগঞ্জে করোনা পরিস্থিতিতে ভূমি অফিস’র অস্থায়ী কর্মীকে ছাঁটাই

বিশেষ প্রতিনিধি ॥ করোনা পরিস্থিতির মধ্যে কোনো শ্রমিক কর্মচারী ছাঁটাই করা যাবে না মর্মে সরকারের সতর্কতা থাকলেও তা আমলে নেয়নি মেহেন্দিগঞ্জ ভূমি অফিস কর্মকর্তারা। এই সংকটময় সময়ে মেহেন্দিগঞ্জ ভূমি অফিসের ঝাড়ুদার হিসাবে মাষ্টার রোলের চাকুরি হইতে অবৈধভাবে মোঃ জাহাঙ্গীর হোসেনকে বাদ দেওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এই ঘটনায় সুবিচার পেতে বরিশাল জেলা প্রশাসক বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছেন জাহাঙ্গীর। তিনি বলেন, ওই পদে ৫০০শত টাকা মাসিক বেতনে প্রায় ৭বছর নিষ্ঠার সাথে অফিসের পরিস্কার পরিচ্ছন্নততার কাজ করেছেন। তার কাজের প্রতি সন্তুষ্ট হয়ে ছাটাইয়ের পৃর্বে তাকে ৩০০০টাকা বেতন দিয়েছিল সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা। করোনার মধ্যেও অফিস বন্ধ থাকা সত্ত্বেও তিনি পরিস্কার পরিচ্ছন্নতার কাজ করেছেন, হঠাৎ এক দিন অসুস্থ্যতার কারনে অনুপস্থিত থাকায় পরের দিন অফিসে আসলে ভূমি অফিস’র নাজির শহীদুল ইসলাম সাব জানিয়ে দন তোমাকে আর অফিসে আসতে হবে না। এই ব্যাপারে ভূমি অফিসের ভারপ্রাপ্ত সহকারী কমিশনার ভূমি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পিযুষ চন্দ্র দে’র কাছে মোঃ জাহাঙ্গীর গেলে ইউএনও বলেন, আমি তোমাকে চাকুরি হইতে বাদ দেই নাই, তুমি নাজির’র সাথে যোগাযোগ করো। খোজ নিয়ে জানা গেছে জাহাঙ্গীর’র পরিবর্তে ওই পদে প্রায় ৬০ বছরের এক বৃদ্ধাকে নিয়োগ দেওয়া হইয়াছে। জাহাঙ্গীর বলেন, নাজির’র কাছে পুনরায় গেলে নাজির বলেন, চাকুরি গুছ করিতে হইলে এক লাখ টাকা লাগবে। বর্তমানে করোনার মধ্যে অস্থায়ী চাকুরিটা হারিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছে জাহাঙ্গীর’র পরিবার। চাকুরিটা ফিরে পেতে যথাযত কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করছেন। এই বিষয়ে নাজির বলেন, বাদ দেওয়ার বিষয়টি ইউএনও স্যার ভালো জানেন। আমার বাদ দেওয়ার কোন ক্ষমতা নেই। নির্বাহী কর্মকর্তা অসুস্থ থাকায় তার বক্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Dokhinerkhobor.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com