শুক্রবার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ০৮:২৮ অপরাহ্ন

উপ-সম্পাদক :: দিদার সরদার
প্রধান সম্পাদক :: সমীর কুমার চাকলাদার
প্রকাশক ও সম্পাদক :: কাজী মোঃ জাহাঙ্গীর
যুগ্ম সম্পাদক :: মাসুদ রানা
সহ-সম্পাদক :: এস.এম জুলফিকার
প্রধান নির্বাহী সম্পাদক :: মামুন তালুকদার
নির্বাহী সম্পাদক :: সাইফুল ইসলাম
ব্যবস্থাপনা সম্পাদক :: আবুল কালাম আজাদ
সংবাদ শিরোনাম :
জমে উঠেছে স্বরূপকাঠি পৌরসভার নির্বাচন সাদা মনের মানুষ ফারুক হোসেনকে পাওয়ার বাসনা পৌরবাসীর

জমে উঠেছে স্বরূপকাঠি পৌরসভার নির্বাচন সাদা মনের মানুষ ফারুক হোসেনকে পাওয়ার বাসনা পৌরবাসীর

এনএম দেলোয়ার, পিরোজপুর ॥ সাদা মনের মানুষ ও শান্তির প্রতিক হিসাবে বিগত সময়ে সমগ্র উপজেলায় একটা অবস্থান তৈরী করতে সক্ষম হয়েছেন। ব্যাবসা বানিজ্য সহ রাজনীতির মধ্যে নিজেকে মেলে ধরতে শতভাগ চেষ্টা করে যাচ্ছে বিগত সময় থেকেই। পাশাপাশি বর্তমান সময়ে স্বরূপকাঠি পৌরসভার রাজনীতির মধ্যে একটা শক্ত অবস্থানও তৈরী করেছে নিজ গুণাবলির মাধ্যমে। যদিও সরকার দলীয় নেতা হয়ে পৌর সভার কমিটির মধ্যে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে নিজেদকে মেলে ধরতে শতভাগ সক্ষম হয়েছেন আপন মহিমায়।বিগত সময় থেকেই পৌরবাসীর পাশে থাকার চেষ্টা করে যাচ্ছেন যত্রতত্র ভাবে। পৌর সভার নয়টি ওয়ার্ডের মধ্যে সাদা মনের মানুষ ও শান্তি প্রিয় নেতা ইতিমধ্যে সকল পৌর বাসীর মনের অন্তঃস্থলে প্রবেশ করতে সক্ষম হয়েছে। আর সেই কারণে আগামী পৌর নির্বাচনে মেয়র প্রার্থী হিসাবে নির্বাচন করতে আগ্রহ প্রকাশ করেন সকলের ভালবাসার টানে। আর হ্যা আমরা বলছিলাম স্বরূপকাঠি পৌরসভার ৬ নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা মোঃ ফারুক হোসেনের কথা। বিগত সময় থেকেই তুখোড় রাজনৈতিক নেতা না হলেও সামাজিক ভাবে একজন দক্ষ রাজনীতিবিদ বলা যায়। ব্যাবসা বানিজ্যের পাশাপাশি পৌরবাসীর খেদমত সহ মানবতার সেবায় নিজেকে নিয়োজিত করে দারুণ প্রশংসনীয় ভূমিকা পালন করে যাচ্ছে যত্রতত্র ভাবে। করোনার দুঃসময়ে সরকারের পাশাপাশি বিকল্প হিসাবে নিজস্ব তহবিল থেকে এলাকায় বহু হত দরিদ্র পরিবারের জন্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছিলেন। আর সেই সূত্র ধরেই সাধারন মানুষের অনুরোধে আসন্ন পৌর সভার নির্বাচনে সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থী হিসেবে দেখতে চায় পৌরবাসীররা। এ ব্যাপারে পৌর সভার বেশির ভাগ পৌর ভোটাররা জেলার ও স্থানীয় গণ মাধ্যম কর্মীদের জানান, আমাদের পৌর সভার বর্তমান মেয়র জি এম কবির। গত পৌর নির্বাচনে সাবেক সংসদ বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্ব এ কে এম আউয়াল মহোদয়ের আর্শীবাদ নিয়ে পৌর সভার নির্বাচনে নৌকার টিকেট পেয়েছিল। তবে পরবর্তী সময়ে পৌর নির্বাচন ছিল একটা ইতিহাস। অবশ্য গত বারের মত এবারের নির্বাচন হবে না মাননীয় মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিমের সময়ে। তবে ভিন্ন কথা বলেন, সরকার দলীয় বহু শীর্ষ নেতৃবৃন্দ। তারা নাম না প্রকাশের শর্তে গণ মাধ্যম কর্মীদের জানান, বর্তমান সময়ে পৌর মেয়র জি এম কবির কিন্তু এবারে নৌকার টিকেট নিয়ে দারুণ সন্দিহান। অবশ্য অভিজ্ঞতার আলোকে শান্তিপ্রিয় নেতা মোঃ ফারুক হোসেনকে নিয়ে স্বপ্ন দেখতেই পারে পৌরবাসীরা। নুতন স্বপ্ন ও নুতন আশা নিয়ে অধীর আগ্রহে দিনক্ষণ গুনতেছে পৌর নির্বাচনের সাধারন ভোটাররা।
এ ব্যাপারে কথা হয়, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর নির্বাচনের সম্ভাব্য মেয়র প্রার্থী মোঃ ফারুক হোসেনের সাথে। তিনি অকপটে স্বীকার করেন, আমি মানবতার সেবায় নিয়োজিত। আমার চিন্তা ভাবনা সব সময় পৌরবাসীর জন্য। পৌর ভোটাররা আমার প্রধান সম্পদ। তিনি আরও জানান, আমি দলের হয়ে নৌকার টিকেট পাওয়ার বাসনা নিয়ে মাঠে নেমেছি।সন্মানিত পৌর সভার ভোটারদের ভালবাসাময় সিক্ত হয়ে আমি আগামীর জন্য স্বপ্ন দেখি পৌরবাসীর খেদমত করবো মহান আল্লাহর নাম নিয়ে। দৃঢ চিত্তে বলতেছি, আমি যদি নৌকার টিকেট পাই তাহলে ভোটারদের কথা চিন্তা করে প্রতিটি ওয়ার্ডের মধ্যে সাপ্লাই পানির ব্যাবস্থা করবো ইনশাআল্লাহ। পাশাপাশি প্রতিটি ওয়ার্ডের মধ্যে কোন ধরনের কাচা রাস্তা থাকবে না। রোল মডেল হবে স্বরূপকাঠি পৌরসভা আর এ গ্রেড পৌর সভার নাম্বার ওয়ানের মতো হবে সর্বদিক দিয়ে। মহান আল্লাহর নামে আমি আমার দায়িত্ব পালন করে যাবো মৃত্যুর পূর্ব মুহূর্ত পর্যন্ত।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2017 Dokhinerkhobor.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com